ঢাকাশনিবার, ৩রা ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, সন্ধ্যা ৬:৩১

মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জন্য তৈরি হচ্ছে ‘বীর নিবাস’

বেতাগী প্রতিনিধি
সেপ্টেম্বর ৭, ২০২২ ১২:৫৬ পূর্বাহ্ণ
পঠিত: 89 বার
Link Copied!

বরগুনার বেতাগীতে সরকারিভাবে ২২ জন ভূমিহীন ও অস্বচ্ছল মুক্তিযোদ্ধার পরিবারের জন্য তৈরি করে দেওয়া হচ্ছে বাসস্থান ‘বীর নিবাস’। জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান হিসেবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বীর মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি আন্তরিক ভালোবাসার প্রতিফলন এই বীর নিবাস।

বেতাগী পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডে প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধা মোশারেফ হোসেন নসু‘র স্ত্রী আলেয়া বেগমের নামে বরাদ্দকৃত আবাসনের

মঙ্গলবার সকাল এগারটায় আনুষ্ঠানিকভাবে নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করেন, প্রধান অতিথি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মো. মাকসুদুর রহমান ফোরকান। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. সুহৃদ সালেহীন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান মো. আমিরুল ইসলাম পিন্টু , উপজেলা প্রকৌশলী মো. রইসুল ইসলাম ও উপজেলা প্রকল্পবায়ন কর্মকর্তা মো. অলি উল্লাহ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, বেতাগী উপজেলার যুদ্ধকালীন কমান্ডার আব্দুল মোতালেব সিকদার, মুক্তিযোদ্ধা মো. রেজাউল করিম ফারুক, বেতাগী প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি সাইদুল ইসলাম মন্টু, পৌর কাউন্সিলর মো. কামাল হোসেন পল্টু ও ঠিকাদার এইচএম ইলিয়াস হোসেনসহ অন্যন্যরা।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিস সূত্রে জানা যায়, মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আধীনে ২০২১-২২ আর্থ বছরে অসচ্ছল বীর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য আবাসন নির্মাণ প্রকল্পের আওতায় দরপত্রের অনুক’লে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় থেকে ১২ জুন‘ ২০২১ কার্যাদেশ প্রদান করা হয়।

এ উপজেলায় চলতি অর্থ বছরে ২২ টি বীর মুক্তিযোদ্ধার পরিবারের আবাসনের জন্য বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে মোট ৩ কেটি ১০ লাখ ২৮ হাজার ৩৮২ টাকা। প্রতিটি আবাসন নির্মাণে ব্যয় ধরা হয়েছে ১৪ লাখ ১০ হাজার ৩৮২ টাকা। আবাসন নির্মাণের পর এসব ঘরের নাম দেওয়া হবে ‘বীর নিবাস’।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষথেকে এ বীর নিবাস পেয়ে খুশি প্রয়াত মুক্তিযোদ্ধা মোশারেফ হোসেন নসু‘র স্ত্রী আলেয়া বেগম।

তিনি তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, আমার পরিবার সবাই অত্যান্ত খুশি। পরম করুনাময়ের কাছে কায়োমনোবাক্যে দোয়া করি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে আরও দীর্ঘ সময় বাঁচিয়ে রাখুক।

শুধু আলেয়া বেগমই নয়, উপজেলার একাধিক ভূমিহীন ও অস্বচ্ছল মুক্তিযোদ্ধা ও তাঁদের পরিবার আব্দুর রব হাওলাদার, মো. রেজাউল করিম ফারুক, আ. মালেক মিয়া, মো. শাহআলম, মো. কবির, মো. শাহজাহান হাওলাদার, শামছুল আলম, আ. মজিদ মৃধা, সুলতান হোসেন ও মো. মোসলেম আলী খান মাথা গোজাঁর ঠাঁই পেয়ে তাঁরাও সবাই আনন্দিত ও সরকারের প্রতি কৃতজ্ঞ।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।