ঢাকারবিবার, ১৪ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, সন্ধ্যা ৬:৫০

যে কারনে ১০ টাকার গোলাপ এখন ৫০ টাকা

নিজস্ব প্রতিনিধি
ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০২২ ৩:৫৮ অপরাহ্ণ
পঠিত: 97 বার
Link Copied!

১৪ ফেব্রুয়ারি ভ্যালেন্টাইন্স ডে ও পহেলা ফাল্গুন উপলক্ষে ফুলের দোকানগুলোতে বেড়েছে ক্রেতাদের আনাগোনা। বেড়েছে ফুল বিক্রির দাম।

বরগুনার একমাত্র খুচরা ও পাইকারি ফুল বিক্রির বাজার হিসেবে পরিচিতি স্থান পৌর শহরের নাথ পট্টি এলাকা। বসন্ত ও ভ্যালেন্টাইন্স ডে উপলক্ষে এখানকার ফুলের দোকানগুলো সেজেছে গোলাপসহ নানা ফুলে।

সড়কের পাশে বিভিন্ন পাড়া-মহল্লায়ও ছোট পরিসরে নানা ফুলের পসরা সাজিয়ে বসেছেন সৌখিন ও অস্থায়ী ব্যবসায়ীরাও।

তবে সচারাচর দামের চেয়ে বেশি দামে ফুল বিক্রির অভিযোগ ক্রেতা সাধারণের। ক্রেতারা বলছেন, ১০ টাকার গোলাপ ৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। নেটে পেচানো চাইনিজ গোলাপ ৭০ থেকে ১৫০ টাকা পর্যন্ত দাম হাঁকছে। সচারাচর অপেক্ষা দাম কয়েকগুণ বেশি হলেও মানুষ আগ্রহ নিয়েই গোলাপ কিনছেন প্রিয়জনের জন্য।

অপরদিকে বিক্রেতারা বলছেন, করোনা ও সম্প্রতি অসময়ে বৃষ্টির কারণে ফুল চাষীদের অবস্থা খারাপ। বসন্ত আর ভালোবাসা দিবসকে কেন্দ্র করে উৎপাদন অপেক্ষা ফুলের চাহিদা বেড়ে গেছে। আর তাই বেড়েছে পাইকারি ও খুচরা বেচাকেনারও দামও।

স্বপ্নের ঠিকানা পুস্প ঘর দোকানের মালিক অজয় কুন্ডু বলেন, একদিকে করোনা অন্যদিকে অসময়ের বৃষ্টিতে ফুল চাষিদের অবস্থা খারাপ। আবার বসন্ত ও ভ্যালেন্টাইন্স ডে উপলক্ষেও চাহিদা অনুযায়ী ফুলের পাইকারি দাম বেড়ে গেছে। আগে যে ফুলের দাম ছিলো ১০ টাকা তা এখন ২৫ টাকায় পৌঁছেছে। চাইনিজ গোলাপের দামও বেড়ে ৪৫ টাকায় পৌঁছেছে। তাই টিকে থাকতে আমাদেরও বেশি দামে কিনে বেশি দামেই (৫০ থেকে ১৫০ টাকা পর্যন্ত) বিক্রি করতে হচ্ছে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।