ঢাকাশনিবার, ১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, রাত ১:০২

আমতলীতে সহপাঠিকে কুপিয়ে জখম

আমতলী প্রতিনিধি
জানুয়ারি ২৯, ২০২২ ৮:৩২ অপরাহ্ণ
পঠিত: 48 বার
Link Copied!

বনভোজনে কথা কাটাকাটির জের ধরে মাহফিল থেকে ডেকে নিয়ে মোঃ আরিফুর রহমানকে সহপাঠি আমিনুল ও তার সহযোগীরা কুপিয়ে গুরুতর যখম করেছে। আহত আরিফকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনা ঘটেছে আমতলী উপজেলার মহিষডাঙ্গা গ্রামে শুক্রবার রাত নয়টার দিকে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।
জানাগেছে, উপজেলার কাউনিয়া গ্রামের মোঃ আলতাফ হোসেন মুন্সির ছেলে মোঃ আরিফুর রহমান মহিষডাঙ্গা শামিম হোসেন দাখিল মাদ্রাসায় ১০ শ্রেনীতে লেখাপড়া করে। গত ১৫ জানুয়ারী সহপাঠিরা মিলে বনভোজনের আয়োজন করে। ওই সময় সহপাঠি আমিনুলের সাথে আরিফুর রহমানের কথা কাটাকাটি হয়। এর জের ধরে শুক্রবার রাতে মহিষডাঙ্গা গ্রামের একটি মাহফিল থেকে আরিফুর রহমানকে ডেকে এনে আমিনুল, এনামুল, রাকিবুল ও আমিনুল্লাহসহ ৬/৭ জনে মিলে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে। তাদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে আরিফের মাথা ও হাতে গুরুতর জখম হয়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। ওই হাসপাতালের চিকিৎসক ডাঃ সুমন বিশ^াস তাকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন। ওই রাতে তাকে পটুয়াখালী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।
আরিফুর রহমানের বাবা মোঃ আলতাফ মুন্সী বলেন, আমার ছেলেকে মাহফিল থেকে ডেকে নিয়ে ওর সহপাঠি আমিনুল, এনামুল, রাকিবুল ও আমিনুল্লাহসহ ৬/৭ জনে মিলে কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে। আমি এ ঘটনার বিচার চাই।
আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডাঃ সুমন বিশ^াস বলেন, যথাযথ চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
আমতলী থানার ওসি একে এম মিজানুর রহমান বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠিয়ে বিষয়টি জেনেছে। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।